Main Menu

সিলেটে নয়, মালদ্বীপেই হবে এএফসি কাপ

Sharing is caring!

গত মে মাসে এএফসি কাপের স্বাগতিক ছিল মালদ্বীপ। ভারতীয় ক্লাব ব্যাঙ্গালুরু এফসি জৈব সুরক্ষা বলয় ভাঙার পর নিজেদের নাম প্রত্যাহার করে নিয়েছিল মালদ্বীপ। পিছিয়ে যায় খেলা। আনুষ্ঠানিকভাবে এএফসি কাপের স্বাগতিক হওয়ার প্রস্তাব করেছিল বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়ন বসুন্ধরা কিংস। এজন্য তারা ভেন্যু নির্ধারণ করেছিল সিলেট জেলা স্টেডিয়ামকে। কিন্তু বসুন্ধরাকে এড়িয়ে সেই মালদ্বীপকেই ‘ডি’ গ্রুপের স্বাগতিক হওয়ার জন্য বেছে নিয়েছে এএফসি।

নিজেদের ওয়েবসাইটে এএফসির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে,‘ডি’ গ্রুপের ম্যাচ আয়োজনের জন্য আবারও স্বাগতিক করা হয়েছে মালদ্বীপকে। ১৫ আগস্ট থেকে শুরু হবে এএফসি কাপের ‘ডি’ গ্রুপের খেলা। প্রথম দিন হবে বাছাইপর্ব। মুখোমুখি হবে ভারতের বেঙ্গালুরু এফসি ও মালদ্বীপের ক্লাব ঈগলস। জয়ী দল খেলবে বসুন্ধরা কিংস, এটিকে মোহনবাগান ও মাজিয়া স্পোর্টসের সঙ্গে গ্রুপ পর্বে। গ্রুপের সেরা দল এক লেগের ইন্টার জোনাল সেমিফাইনালে।

১৮ আগস্ট মালদ্বীপের আরেক ক্লাব মাজিয়া স্পোর্টসের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচ বসুন্ধরার। ২১ আগস্ট দ্বিতীয় ম্যাচে খেলবে বেঙ্গালুরু এফসি ও ক্লাব ঈগলসের মধ্যকার জয়ী দলের সঙ্গে। শেষ ম্যাচে দলটির প্রতিপক্ষ আইএসএল চ্যাম্পিয়ন এটিকে মোহনবাগান।

১৪ মে থেকে মালেতে ‘ডি’ গ্রুপের খেলা শুরু হওয়ার কথা থাকলেও মালদ্বীপের আপত্তির কারণেই দুই দফা পেছানো হয় খেলা। সিলেট জেলা স্টেডিয়ামে নিজেদের ভেন্যু করে স্বাগতিক হওয়ার ইচ্ছা জানিয়েছিল বসুন্ধরা। সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশে করোনা পরিস্থিতি বিবেচনায় সেই মালদ্বীপকেই বেছে নিয়েছে এএফসি।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*