Main Menu

সিলেটে এসে ‘অঘটন’ ঘটালেন বুবলী!

Sharing is caring!

টেলিভিশনের সংবাদ পাঠিকা থেকে সিনেমায় নাম লেখিয়েই চমকে দিয়েছিলেন শবনম বুবলী!

ঢালিউড সুপারস্টার শাকিব খানের নায়িকা হয়ে তার অভিষেকটাও ছিল রাজকীয়। বুবলীর সেই রাজত্ব এখনো চলছে। গত পাঁচ বছরে মুক্তি পেয়েছে তার অভিনীত ১০টি সিনেমা। বর্তমানে কাজ করছেন আরও বেশ কয়েকটিতে।

শনিবার (২০ নভেম্বর) ছিলো এই নায়িকার জন্মদিন। সাইফ চন্দনের পরিচালায় ‘কয়লা’ সিনেমার শুটিংয়ে বর্তমানে সিলেটের জাফলংয়ে রয়েছেন বুবলী। সেখানেই কাটছে বিশেষ দিনটি। এদিন তিনি জানিয়েছেন দিনটি কীভাবে উদযাপন করছেন।

বুবলী বলেন, ‘জাফলংয়ে বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তের দিকে খাসিয়া পল্লী এলাকায় আমাদের শুটিং চলছে। সেই শুটিংয়ের মধ্যেই গতকাল (শুক্রবার) সন্ধ্যা থেকে বার্থ ডে সেলিব্রেশন শুরু হয়ে গেছে। সবাই শুভেচ্ছা জানাচ্ছে, কেক পাঠাচ্ছে, ফুল পাঠাচ্ছে।’

এই নায়িকা জানান, জন্মদিন উপলক্ষে এদিন রাত ১২টা বাজতেই ইউনিটের সবাই তাকে সারপ্রাইজ দিয়েছিলেন। শুটিং স্পটে মাত্র কেক কেটে, হৈচৈ করে হোটেলে ফিরেছেন। ফ্রেশ হচ্ছেন। এরমধ্যেই দেখেন আরও বিশাল আয়োজনে তার জন্য সারপ্রাইজ নিয়ে হাজির ‘কয়লা’র টিম। নায়ক নিবর, নির্মাতা সাইফ চন্দন, অভিনেতা রাশেদ মামুন অপু’সহ বাকিরা বেলুন, কেক, বার্থডে সেলিব্রেশন মিউজিকসহ চমকে দেন তাকে!

এই চমকের পর আরও চমকে যান বুবলী! যখন একজন এসে তাকে জানান, এখনো রাত ১২টা বাজেনি! পরে সময় মেলাতে গিয়ে জানতে পারেন সীমান্ত এলাকা হওয়ায় ঘড়িতে ভারতীয় সময় অর্থাৎ আধা ঘণ্টা বেশি দেখানো হচ্ছে! ফলে সাড়ে ১১টার সময়ই ১২টা বেজে গেছে ঘড়িতে! এ নিয়ে সবাই বেশ হাসি-ঠাট্টা ও মজা করেন!

এবারের জন্মদিনে বুবলী বিশেষভাবে মুগ্ধ হয়েছেন খাসিয়াদের ভালোবাসায়। নায়িকার ভাষ্য, ‘খাসিয়াদের ভালোবাসায় আমি মগ্ধ। এই ভালোবাসার কথা কখনো ভুলব না। এখানে বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তের কাছের এলাকা। পাহাড়ী অঞ্চল। অনেক জায়গাতেই নেট পাওয়া যায় না। এমন দুর্গম এলাকার মানুষও আমাদের দেখতে ছুটে আসছে। তারা আমাদের চেনে, ভালোবাসে, আমাদের সিনেমা দেখে। অনেকে আমাকে নাম ধরে ডাকছে। ছবি তুলতে আসছে। জন্মদিনে শুভেচ্ছা জানাচ্ছে। এটা আমার কাছে সত্যিই বিস্ময়ের মতো লাগছে। এবারের জন্মদিনে এই ভালোবাসাটাই আমার বিশেষ প্রাপ্তি।’






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*